বরিশাল সিটি মেয়র সাদিক আব্দুল্লাহ পাচ্ছেন মন্ত্রী বা প্রতিমন্ত্রী মর্যাদা?

0
54

Sharing is caring!

- Advertisement -

এক সাথে তিনটি সিটি কর্পোরেশনের মেয়রকে দেওয়া হয়েছে মন্ত্রী ও প্রতিমন্ত্রী মর্যাদা। তাদের মধ্যে রাজধানীর উত্তর সিটির মেয়র আতিকুল ইসলাম পেয়েছেন পূর্ণ মন্ত্রী মর্যাদা। বাকি দুইজন রাজশাহী সিটি মেয়র এ.এইচ.এম. খায়রুজ্জামান লিটন ও খুলনার মেয়র তালুকদার আব্দুল খালেক পেয়েছেন প্রতিমন্ত্রীর মর্যাদা।

রাষ্ট্রপতির আদেশক্রমে মন্ত্রিপরিষদ সচিব শফিউল আলম স্বাক্ষরিত এক প্রজ্ঞাপনে এ নির্দেশনা দেওয়া হয়। তবে চট্টগ্রাম, বরিশাল, কুমিল্লা, ময়মনসিংহ, রংপুর, গাজীপুর, সিলেট সিটি কর্পোরেশনের মেয়রদের এখনো বিশেষ মর্যাদা দেওয়া হয়নি।

মঙ্গলবার এই ঘোষণা পরে কিছুটা হতাশায় পড়েছেন বরিশাল সিটি মেয়রের অনুসারীরা। তাদের ধারনা ছিল অন্তত বরিশাল সিটি কর্পোরেশনের মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আব্দুল্লাহকেও সমর্যাদা দেওয়া হবে।

কারণ গত বছরের শেষে দিকে মেয়র নির্বাচিত হয়ে তিনি ইতিবাচক অনেক ভুমিকা রেখেছেন। বিশেষ করে নগরীর সড়ক উন্নয়নের ক্ষেত্রে মেয়র উদাহরণ তৈরি করেছেন। এছাড়া বরিশালের মত সিটিতে তিনি থ্রিডি জেব্রাক্রসি করেও বেশ আলোচিত হয়েছেন।

এর বাইরেও তিনি সিটি কর্পোরেশনের রাজস্ব আয় বাড়তেও গুরুত্বপূর্ণ ভুমিকা রাখেন। সবকিছু মিলিয়ে মেয়র সাদিক সাম্প্রতিকালে পত্রপত্রিকায় ব্যাপক শিরোনাম হয়েছেন।

মুলত এই কারণেই তার অনুসারীরা বেশিমাত্রায় আঘাতপ্রাপ্ত হয়েছেন।

যদিও তাদের আশার বাণী হচ্ছে- রিশাল সিটি মেয়র অর্থাৎ ভাইকেও (সাদিক) পরবর্তীতে চট্টগ্রাম, কুমিল্লা, ময়মনসিংহ, রংপুর, গাজীপুরের সাথে মর্যদা দেওয়া হতে পারে।

আবার কেউ কেউ বলছেন মেয়র সাদিককে পূর্ণ মন্ত্রী না হলেও প্রতিমন্ত্রীর মর্যদা দেওয়ার সম্ভবনাই বেশি। বিশেষ করে বয়স বিবেচনা করে প্রধানমন্ত্রী এই সিদ্ধান্ত নিতে পারে বলে অনুমেয়।

এমন পরিস্থিতিতে রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা বলছেন- এখনই বরিশাল সিটি মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আব্দুল্লাহকে মন্ত্রী বা প্রতিমন্ত্রীর মর্যদা দেওয়ার সম্ভবনা খুবই কম। কারণ অন্যান্য সিটি মেয়রদের তুলনায় তিনি বয়সে অনেক অনুজ। তবে তিনি কর্মদক্ষতার যে প্রমাণ দিয়েছেন তাতে দেওয়াও হতে পারে। তবে সেটা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ইচ্ছা অনিচ্ছার বিষয়।

মেয়র সাদিক ঘনিষ্ট আওয়ামী লীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগের একাধিক নেতাকর্মী মঙ্গলবার ঘোষণার পরে হতাশ তাদের ফেসবুকে প্রতিক্রিয়া তুলে ধরেন। তবে সেখানে তারা পরবর্তী ঘোষণার অপেক্ষায় থাকার বিষয়টিও উল্লেখ করেছেন।

অবশ্য তাদের মতো বরিশাল শহরবাসীও প্রার্থনা রাখতে অন্তত সিটি মেয়র সেরনিয়াবাত সাদিক আব্দুল্লাহকে যেন দুটি একটি মর্যাদা দেওয়া হয়।’

(Visited 1 times, 1 visits today)

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here